• শিরোনাম

    ১৬ সেপ্টেম্বর নারায়ণগঞ্জের জনসভা সফল করার লক্ষে সোনারগাঁও উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রস্তুতিমুলক সভা অনুষ্ঠিত

    এস,এম মনির হোসেন সোমবার, ১১ সেপ্টেম্বর ২০২৩

    ১৬ সেপ্টেম্বর নারায়ণগঞ্জের জনসভা সফল করার লক্ষে সোনারগাঁও উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রস্তুতিমুলক  সভা অনুষ্ঠিত

    apps

    নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁওয়ে দেশ বাঁচাও স্লোগানে স্বাধীনতা বিরোধী দেশি – বিদেশী অপশক্তির বিরুদ্ধে দেশ প্রেমীদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান জানিয়ে আগামী ১৬ই সেপ্টেম্বর নারায়ণগঞ্জের জনসভা সফল করার লক্ষে ১১ই সেপ্টেম্বর সোমবার বিকেলে সাবেক সাংসদ ও সোনারগাঁও উপজেলা আওয়ামীলীগের বিপ্লবী সাধারণ সম্পাদক, আব্দুল্লাহ আল কায়সার হাসনাত এর নিজ বাসভবনে মোগরাপাড়ায় প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

    উক্ত প্রস্তুতি সভায় সোনারগাঁও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সোনারগাঁও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা এ্যাড: সামসুল ইসলাম ভূঁইয়ার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য এ কে এম শামীম ওসমান ( এম পি)।

    এসময় তিনি বক্তব্যে বলেন, নারায়ণগঞ্জের মাটিতে
    দাড়িয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আমাদের জাতির পিতা আর প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী হাসিনা আমাদের নেত্রী। তাদেরকে নিয়ে যদি কেউ অকথ্য ভাষায় কথা বলার চেষ্টা করে এগুলো আমরা নেতা কর্মীরা সহ্য করবো না।
    এগুলো মেনে নেওয়ার মত না। অন্তত আমরা মেনে নিতে পারবো না। আমরা যারা ৭৫ এর পরে রাজনীতিতে এসেছি তারা শেখ হাসিনাকে মায়ের দৃষ্টিতে দেখি। ওরা আমাদের মাকে নিয়ে অশ্লীল ভাষায় গালাগাল করবে, এটাতো আমরা মেনে নিব না। এমন কর্মকাণ্ড আমরা মেনে নিতে পারি না। তাই মনে হয়েছে এবার ঘণ্টা বাজানোর সময় এসেছে। কারণ দেশের সবগুলো আন্দোলন শুরু হয়েছে এ নারায়ণগঞ্জ থেকে। তাই নারায়ণগঞ্জেই আমাদের ঘণ্টা বাজাতে হবে।

    তিনি বলেন, নারায়ণগঞ্জে একজন আছে পলিটিক্যাল। তিনি বলেছেন পুলিশ ছাড়া নামতে। আমি পুলিশের কাছে অনুরোধ করছি আপনাদের যত পুলিশ আছে, সব তাদের পক্ষে যান। সব নিয়ে ঘোষণা করেন পুলিশ আমাদের পক্ষে আছে, তারপর ২৪ ঘণ্টার মধ্যে নারায়ণগঞ্জ ছাড়া করে দিব। তিনি আরো বলেন, রাজনীতিতে কিছু হিসাব নিকাশের বিষয় আছে। আমি যে সব জানি অনেকে তা জানেনা। তবে খোঁজ খবর রাখি। ওরা ষড়যন্ত্রের খেলায় মেতে উঠেছে। ওরা তারাই যারা স্বাধীনতার সময় ত্রিশ লাখ মানুষের জীবন নিয়েছিল। দুই লাখ মা-বোনের সম্ভ্রম কেড়ে নিয়েছিল। ওরা ইসলামের কথা বলে মানুষ জবাই করেছিল। আমরা কি এই জন্য মাঠে নামবো, না এই জন্য মাঠে নামবো না। নামবো স্বাধীনতার সপক্ষের শক্তির যোগান দিতে। কী লজ্জা আমাদের? এই শহীদদের রক্তের বিনিময়ে স্বাধীন দেশ রক্ষা করতে আমাদের এক হতে হয়। এই বয়সে মুক্তিযোদ্ধাদের রাস্তায় নেমে স্লোগান দিতে হয়। সেই সময়ে মুক্তিযোদ্ধারা স্লোগান দিয়েছিলেন, ‘বীর বাঙালী অস্ত্র ধর, বাংলাদেশ স্বাধীন কর।’ আর আজকে আমাদের স্লোগান ধরতে হয়, ‘বীর বাঙালী ঐক্য গড়ো, বাংলাদেশ রক্ষা করো।

    প্রস্তুতি মুলক সভায় সোনারগাঁও উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সাংসদ আব্দুল্লাহ আল কায়সার হাসনাতের সার্বিক তত্ত্বাবধানে এসময় আরোও বক্তব্য রাখেন,সোনারগাঁও উপজেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি ও পিরোজপুর ইউপি চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার মাসুদুর রহমান মাসুম, নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ডাঃ আবু জাফর চৌধুরী বিরু,উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মাহামুদা আক্তার ফেন্সি।

    এসময় আরোও উপস্থিত ছিলেন,সোনারগাঁও থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ মাহাবুব আলম সুমন, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি রফিকুল ইসলাম নান্নু, সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ আলী হায়দার,মোগরাপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান আরিফ মাসুদ বাবু, সনমান্দি ইউপি চেয়ারম্যান জাহিদ হাসান জিন্নাহ,কাঁচপুর ইউপি চেয়ারম্যান মোশাররফ ওমর,উপজেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জাকির হোসেন,মোস্তাফা কামাল নিলু, জামপুর ইউপি চেয়ারম্যান হুমায়ুন কবির ভূইয়া, বারদী ইউপি চেয়ারম্যান মাহাবুবুর রহমান লায়ন বাবুল, বৈদ্যেরবাজার ইউপি চেয়ারম্যান আল আমিন সরকার,গাজী মজিবুর রহমান, এ্যাড. নুর জাহান, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান রুমা,মাসুম বিল্লাহ,উপজেলা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আরিফ আহমেদসহ সোনারগাঁও মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সকল সদস্যগন, আওয়ামী লীগ,যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ,ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দ ও সংবাদকর্মীরা।

    বাংলাদেশ সময়: ৮:৪৮ অপরাহ্ণ | সোমবার, ১১ সেপ্টেম্বর ২০২৩

    dainikbanglarnabokantha.com |

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আজ বিজয়া দশমী

    ২৬ অক্টোবর ২০২০

    আর্কাইভ