• শিরোনাম

    সিরাজগঞ্জের মহাসড়কে যানজটের হটস্পট ঝুকিপূর্ণ নলকা সেতু

    অনলাইন ডেস্ক | শুক্রবার, ১৬ জুলাই ২০২১ | পড়া হয়েছে 11 বার

    সিরাজগঞ্জের মহাসড়কে যানজটের হটস্পট ঝুকিপূর্ণ নলকা সেতু
    apps

    টি.এম.এ হাসান, সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি:
    উত্তরবঙ্গের দ্বারপ্রান্ত খ্যাত সিরাজগঞ্জের মহাসড়কে অন্য কোথাও খুব বেশি যানজট না থাকলেও নলকা সেতু এলাকার যানজট যেন একটা অলিখিত নিয়ম হয়ে দাড়িয়েছে। সেতুটি ঝুকিপূর্ণ হওয়ায় একদিকে যেমন যান চলাচল নিয়ন্ত্রণ করতে হচ্ছে, অন্যদিকে সেতুটির উপরের সংযোগ স্থল গুলো ও রাস্তায় প্রায়ই মেরামত করা হলেও উল্লেখযোগ্য কোনও সাফল্য দেখা যায়নি। যার ফলে ইচ্ছা করলেও সেতুতে দ্রুত গাড়ি পারাপার সম্ভব হয়না। অন্যদিকে মহাসড়কে দীর্ঘদিন গণপরিবহন বন্ধ থাকলেও মেরামতের কাজগুলো সম্পন্ন করে মহাসড়ককে সম্পুর্ণ রূপে প্রস্তুত করা হয়নি। তাছাড়াও মহাসড়ক চারলেনে উন্নীতকরণের কাজ এবার ঈদ যাত্রাকে আরও কয়েকগুণ বেশি ভোগান্তিতে ফেলতে পারে।

    শুক্রবার সকাল ৯টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত সরেজমিনে ঘুরে সিরাজগঞ্জের মহাসড়কের অন্য কোথাও উল্লেখযোগ্য যানজট না দেখা গেলেও মহাসড়কের মফিজ মোড় এলাকা থেকে নলকা সেতু হয়ে হাটিকুমরুল গোলচত্বর এলাকা পর্যন্ত প্রায় ৭কিলোমিটার যানজট দেখা গেছে। অন্যদিকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কড্ডা এলাকায় দায়িত্বরত ট্রাফিক ইন্সপেক্টর মো. আব্দুল গণি।

    তিনি বলেন, গাড়ির চাপ এই মুহুর্তে একটু কম থাকলেও আবারও বাড়বে, কিন্তু এর মাঝেই মফিজ মোড় এলাকার ৬নং সেতু হতে নলকা সেতু পর্যন্ত অন্তত ৫কিলোমিটার এলাকা জুড়ে যানজট রয়েছে। নলকা সেতুকেই এর মূল কারণ হিসাবে উল্লেখ করেন তিনি।

    একই রকম কথা বলছেন হাটিকুমরুল হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শাহজাহান আলী। নলকা সেতুটিই যানজটের অন্যতম প্রধান কারণ উল্লেখ করে তিনি বলেন, দীর্ঘদিন বাস বন্ধ থাকার পরে গতকাল গণপরিবহন চালু হওয়ায় রাস্তার গাড়ির প্রচুর চাপ রয়েছে। এর মধ্যে নলকা সেতুটি ঝুকিপূর্ণ হওয়ার কারণে সেখানে যান চলাচল নিয়ন্ত্রণের পাশাপাশি সাবধানতা অবলম্বন করা হচ্ছে। এসকল কারনে নলকার পূর্বপাশ হতে হাটিকুমরুল গোলচত্বর এলাকা পর্যন্ত যানজট প্রায়ই লেগেই থাকছে। অন্যদিকে ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কের চান্দাইকোনা এলাকায় রাস্তা খারাপ হওয়ায় প্রায়ই কমবেশি যানজট থাকছে।

    তবে এখন পর্যন্ত যানজট স্থায়ী না উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, মহাসড়কের যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় ও ঈদে ঘরমুখো মানুষের যাত্রা নিরাপদ করতে হাইওয়ে পুলিশ কাজ করে যাচ্ছে।

    তবে সিরাজগঞ্জের মহাসড়কে এই কয়েকটি কারণ ঈদ যাত্রাকে ভোগান্তি দিবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এছাড়াও নলকা সেতু এলাকায় একটি মুহুর্তও যানজট বিহীন কাটছেনা। গাড়ির চাপ বাড়ার সঙ্গে সঙ্গেই যেন বাড়তে থাকে যানজটেরও।

    উল্লেখ্য, কঠোর লকডাউন শিথিল করে গণপরিহন খুলে দেয়ায় সিরাজগঞ্জের মহাসড়কে চাপ পড়েছে দূরপাল্লার বাস ও অন্যান্য গণপরিবহনের। এছাড়াও ঈদ-উল আযহাকে সামনে রেখে বেড়েছে কোরবানির পশু পরিবহন। এতে সিরাজগঞ্জের ঢাকা-উত্তরবঙ্গ মহাসড়কের কড্ডার পশ্চিম এলাকার ৬নং সেতু থেকে নলকা সেতু হয়ে হাটিকুমরুল গোলচত্বর পর্যন্ত প্রায় ৫কিলোমিটার এলাকাজুড়ে যানজট ও বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম হতে ৬নং সেতু পর্যন্ত আরও প্রায় ৭কিলোমিটার রাস্তায় যান চলাচলে ধীরগতি প্রায় লেগেই রয়েছে। এছাড়াও নলকার পুরাতন ঝুকিপূর্ণ সেতুটির কারণে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে যাত্রী ও পরিবহনের।

    বাংলাদেশ সময়: ৩:৩২ অপরাহ্ণ | শুক্রবার, ১৬ জুলাই ২০২১

    dainikbanglarnabokantha.com |

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ