সোমবার ১৭ জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩ আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

>>

রায়পুরে কালভার্টের ইট-রড খুলে নিলেন চেয়ারম্যান

 রিয়াজ উদ্দিন রায়পুর (লক্ষ্মীপুর) প্রতিনিধি   |   মঙ্গলবার, ০৪ মে ২০২১   |   প্রিন্ট

রায়পুরে কালভার্টের ইট-রড খুলে নিলেন চেয়ারম্যান

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে রাস্তার সরকারি বক্স কালভার্টের ইট ও রড খুলে নিয়েছেন এক ইউপি চেয়ারম্যান। ওই স্থানে নতুন কালভার্ট নির্মাণের টেন্ডার হওয়ার সুযোগে এ কাজটি করেছেন তিনি। মঙ্গলবার (০৪ মে) দুপুরে উপজেলার দক্ষিণ চর আবাবিল ইউপির দক্ষিণ উদমারার ম্যানেজার রোড নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটেছে। কবে নাগাদ ঠিকাদার কাজটি শুরু করবেন তাও নিশ্চিত নয়। চলাচলের জন্য তৈরি করা হয়নি বিকল্প কোনো ব্যবস্থা। রাস্তাটি বর্তমানে বিচ্ছিন্ন থাকায় দূর্ভোগের শিকার গ্রামবাসী। সরেজমিন ম্যানেজার রোডে গিয়ে দেখা যায়, বক্স কালভার্টটির ইট খুলে পরিস্কার করছে ৩ শ্রমিক। তাদেরকে এ কাজের জন্য ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নাছির উদ্দিন বেপারী নিয়োজিত করেছেন বলে জানিয়েছেন শ্রমিক রুহুল আমিন, আনোয়ার হোসেন, মুরাদ হোসেন। আগেরদিন রডগুলো খুলে চেয়ারম্যানের ছেলের নির্মাণাধিন বিএডিসির পাম্প হাউজের স্থানে রাখা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেন তারা। ইটগুলো ছড়িয়ে ছিটিয়ে রাখা আছে রাস্তায়। রাস্তাটি এখন বিচ্ছিন্ন অবস্থায় রয়েছে। এ সড়কে কোনো যানবাহনতো দূরের কথা সাধারণ মানুষও চলাচল করতে পারছেন না। কবে নাগাদ রাস্তাটি স্বাভাবিক হবে তাও নিশ্চিত করে কেউ বলতে পারেননি। দক্ষিণ চর আবাবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নাছির উদ্দিন বেপারী বলেন, পুরাতন অকেজো রডগুলো ছেলের কাজের স্থানে এনে শ্রমিকরা মজুদ করেছেন। ইটগুলো পরিস্কার করে এনে রাস্তা মেরামত কাজে লাগানো হবে। এগুলোর দাম বাবদ ঠিকাদারকে টাকা দেওয়ারও প্রস্তাব দিয়েছি। লোকজনের চলাচলে গাছ দিয়ে বিকল্প ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে। ঠিকাদার নূরে হাওলাদার ঝিকু বলেন, বার বার নিষেধ সত্ত্বেও চেয়ারম্যান সম্পূর্ণ অন্যায়ভাবে ইট-রড নিয়ে যাচ্ছেন। নতুন কাজটি করার জন্য এখনই আমাদের প্রস্তুতি নেই। নিজের স্বার্থে চেয়ারম্যান রাস্তাটি বিচ্ছিন্ন্ন করে জনদূর্ভোগ বাড়িয়েছেন। তিনি ঠিকাদারের প্রাপ্য পুরাতন রড-ইট জোরপূর্বক নিয়ে যাচ্ছেন। এলজিইডির উপজেলা সহকারী প্রকৌশলী তাজুল ইসলাম বলেন, বক্স কালভার্টটি এক লক্ষ ২০ হাজার টাকায় সম্পন্ন করার জন্য ঠিকাদারকে ওয়ার্ক অর্ডার দেওয়া হয়েছে। চেয়ারম্যানকে নিষেধ করা সত্ত্বেও তিনি ইট-রড খুলে নিয়ে কাজটি ভালো করেননি। এগুলোর সম্পূর্ণ এখতিয়ার ঠিকাদারের। বিষয়টি সম্পর্কে খোঁজ-খবর নিয়ে উর্ধ্বত্বন কর্তৃপক্ষকে জানানো হবে

Facebook Comments Box

Posted ৬:০২ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ০৪ মে ২০২১

dainikbanglarnabokantha.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

এ বিভাগের আরও খবর

সম্পাদক

রুমাজ্জল হোসেন রুবেল

বাণিজ্যিক কার্যালয় :

১৪, পুরানা পল্টন, দারুস সালাম আর্কেড, ১০ম তলা, রুম নং-১১-এ, ঢাকা-১০০০।

ফোন: ০১৭১২৮৪৫১৭৬, ০১৬১২-৮৪৫১৮৬

ই-মেইল: newsnabokantha@gmail.com

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

design and development by : webnewsdesign.com