• শিরোনাম

    মুজিব জন্মশতবর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা

    রহিমা আক্তার রিতা | রবিবার, ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২২ | পড়া হয়েছে 22 বার

    মুজিব জন্মশতবর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা
    apps

    জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে বাংলাদেশ শিল্প কারিগরি সহায়তা কেন্দ্র (বিটাক)। গতকাল ০৯ ডিসেম্বর ২০২১ তারিখ বৃহস্পতিবার দিনব্যাপী এসব অনুষ্ঠিত হয়।
    সকাল ১০টায় শুরু হওয়া আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের শিল্প মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী জনাব নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন, এম.পি। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মাননীয় শিল্প প্রতিমন্ত্রী কামাল আহমেদ মজুমদার, এম.পি এবং শিল্প মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব জনাব মোঃ জাফর উল্লাহ। সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন বিটাকের পরিচালক ড. সৈয়দ মোঃ ইহসানুল করিম। আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন বিটাকের মহাপরিচালক জনাব আনোয়ার হোসেন চৌধুরী।
    প্রধান অতিথির বক্তব্যে মাননীয় মন্ত্রী জনাব নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন বলেন, জাতরি পতিা বঙ্গবন্ধু শখেমুজবিুর রহমানরে র্অথনতৈকি র্দশনরে আলোকে ২০৪১ সাল নাগাদ উন্নত বাংলাদশে বনির্মিাণ আওয়ামীলীগ সরকাররে অঙ্গীকার ।সলেক্ষ্যে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননত্রেী শখে হাসনিার দূরর্দশী নতেৃত্বে বাংলাদশে দ্রুত সমৃদ্ধরি পথে এগয়িে চলছে।ে বাংলাদশেরে এ অপ্রতরিোধ্য অগ্রযাত্রায় শল্পি খাতরে ভূমকিা অত্যন্ত গুরুত্বর্পূণ।
    তিনি আরও বলেন, রাষ্ট্রীয় কারগিরি প্রতষ্ঠিান হসিবেে দশেীয় শল্পিরে টকেসই উন্নয়নে প্রশক্ষিতি ও দক্ষ জনশক্তি সৃষ্ট,ি গবষেণার মাধ্যমে নতুন প্রযুক্তি উদ্ভাবনও আমদানি বকিল্প যন্ত্রাংশ উৎপাদনে বটিাকরে প্রত্যক্ষ অবদান দশেরে সামগ্রকি অগ্রগততিে প্রতনিয়িত ভূমকিা রখেে চলছে।ে

    মাননীয় শিল্প প্রতিমন্ত্রী কামাল আহমেদ মজুমদারবলেন, বটিাক শল্পি ক্ষত্রেে একটি অনন্য প্রতষ্ঠিান। বটিাক প্রশক্ষিণরে মাধ্যমে শল্পিখাতরে জন্য দক্ষ জনবল তরৈি ও গবষেণার মাধ্যমে প্রযুক্তরি উদ্ভাবন ও হস্তান্তর করে দশেীয় শল্পিখাতরে বকিাশে প্রত্যক্ষভাবে ভূমকিা রখেে চলছে।ে বগিত দনিে বটিাক বাংলাদশে সশস্ত্র বাহনিী, বদ্যিুৎ উৎপাদন ও সরবরাহকারী প্রতষ্ঠিান এবং দশেরে বভিন্নি সার কারখানার জন্য আমদানি বকিল্প যন্ত্রাংশ উৎপাদনরে মাধ্যমে বহু মূল্যবান বদৈশেকি মুদ্রা সাশ্রয় করছে।েএই প্রক্রয়িার মাধ্যমে দশেরে র্আথ-সামাজকি অগ্রগততিে বটিাক যে প্রশংসনীয় ভূমকিা রাখছ,ে আমি তার জন্য সংশ্লষ্টি সবাইকে আন্তরকি ধন্যবাদ জানাই।

    অতিরিক্ত সচিব জনাব মোঃ জাফর উল্লাহ বলেন, আধুনিক পৃথিবীর সাথে তাল মিলিয়ে আমাদের দেশের শিল্প খাতকে এগিয়ে নিতে হবে। চতুর্থ শিল্প বিপ্লবে অংশ গ্রহণের জন্য এখন থেকেই আমাদের প্রস্তুতি নিতে হবে। একই সাথে দেশের সামগ্রিক অগ্রগতির জন্য হালকা প্রকৌশল খাতের সমৃদ্ধির দিকে আরও মনোযোগী হতে হবে।

    সভাপতির বক্তব্যে আনোয়ার হোসেন চৌধুরী বলেন,বাংলাদেশের ইতিহাসেএক সন্ধিক্ষণ ২০২১ সাল। স্বাধীন বাংলাদেশ এ বছর ৫০’এ পা দিয়েছে। সরকার ২৬ মার্চ থেকে ১৬ ডিসেম্বর ২০২১ পর্যন্ত স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপনের ঘোষণা দিয়েছে। একেই সাথে উদযাপিত হচ্ছে সর্বকালের সর্ব শ্রেষ্ঠ বাঙালি, স্বাধীনতার মহান স্থপতি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী। তাই সময়ের এই তাৎপর্যকে ধারণ করেবিটাক আজকের এই উদ্যোগ নিয়েছে।
    তিনি আরও বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রাজ্ঞনেতৃত্বে বাংলাদেশ স্বল্পোন্নত দেশের তালিকা থেকে উন্নয়নশীল দেশের তালিকায় জায়গা করে নিয়েছে। আমরা বিশ্বাস করি এই অব্যাহত অগ্রগতির মধ্য দিয়ে ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ বিশ্বের বুকে উন্নত রাষ্ট্র হিসেবে মাথা উঁচু করে দাঁড়াবে এবং এর মধ্য দিয়েই বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়িত হবে। এ অগ্রযাত্রায় বিটাক অগ্রণী ভ‚মিকা পালন করবে।

    বাংলাদেশ সময়: ১:৪২ অপরাহ্ণ | রবিবার, ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২২

    dainikbanglarnabokantha.com |

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আজ বিজয়া দশমী

    ২৬ অক্টোবর ২০২০

    আর্কাইভ