• শিরোনাম

    আশুলিয়ার ইয়ারপুর ইউপি চেয়ারম্যান পদপ্রাথী মোঃ আকবর হোসেন মৃধা

    নিজস্ব প্রতিবেদক | সোমবার, ০৮ নভেম্বর ২০২১ | পড়া হয়েছে 16 বার

    আশুলিয়ার ইয়ারপুর ইউপি চেয়ারম্যান পদপ্রাথী মোঃ আকবর হোসেন মৃধা
    apps

     শিল্পাঞ্চল আশুলিয়ার ইয়ারপুর ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হিসেবে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী ।সৎ , নির্ভীক , ন্যায়পরায়ন , শ্রমিক বান্ধব , জরদরদী , বলিষ্ঠ কণ্ঠস্বর ও অন্যায়ের প্রতিবাদকারী , মরহুম আলতাব উদ্দিন মৃধার সু-যোগ্য সন্তান , জাতীয় শ্রমিক লীগ আশুলিয়া থানা আঞ্চলিক কমিটির প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মোঃ আকবর হোসেন মৃধা । ইয়ারপুর ইউনিয়নবাসীর সুখে দুঃখে পাশে থেকে সব সময় সেবা করে যাচ্ছেন। জড়িত আছেন অত্র এলাকার বহু স্কুল কলেজ মাদ্রাসা ও মসজিদ কমিটির সাথে । শ্রমিক অধ্যুষিত আশুলিয়ার ইয়ারপুর ইউনিয়নে বিগত করোনা মহামারীর প্রকোপের সময় গরীব ও অসহায় মানুষের মাঝে পর্যপ্ত পরিমানেরর খাদ্য ও অর্থ সহায়তা প্রদান করেছেন তিনি। এছাড়াও ঈদ, বিভিন্ন ধর্মীয় অনুষ্ঠান, খেলাধুলা ও সমাজসেবা মুলক কাজে অত্র এলাকাবাসীকে প্রতিনিয়নত বাড়িয়ে দিয়েছেন সহায়তার হাত। একজন শিক্ষানুরাগী ও ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব হিসেবে অত্র এলাকায় রয়েছে তার ব্যপক সুনাম । দুর্দিনে জনগণের পাশে থাকায় এবং রাজনীতির মাঠে থাকায় একজন জনপ্রিয় চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে পরিচিত মুখ মোঃ আকবর হোসেন মৃধা । আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, এবারের ইউপি নির্বাচনে ত্যাগি ও যোগ্য নেতাদের মূল্যায়ন করে মনোনায় দিতে,টাকার বিনিময়ে যেন হাইব্রিডরা মনোনায়ন না পায় । সে হিসেবে দলের দুর্দিনের অতন্দ্রপ্রহরী পরোপরকারী, অন্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদী কন্ঠস্বর, বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক, সবার প্রিয় মুখ মোঃ আকবর হোসেন মৃধা। এলাকাবাসী বলেন তিনি ইতো মধ্যেই ইউনিয়নবাসীর সেবা করে জনগণের মন জয় করে নিয়েছেন, তিনি সব সময় আমাদের সুখে দুঃখে খোঁজ খবর নেন। তার মতো একজন নেতা ইয়ারপুর ইউনিয়নবাসী চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চায়। এ ব্যপারে ইয়ারপুর ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থী মোঃ আকবর হোসেন মৃধা বলেন, আ,লীগের জন্য রাজনীতি করি কখনো নিজের জন্য কিছু করিনি। আমার নামে নেই ভুমি দখল ,চাঁদাবাজী ,ফুটপাত দখল,ঝুট ব্যবসা বা দলীয় শৃংঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ । মহান রাব্বুল আলামিনের রহমতে আর পৈতিৃক সূত্রে পাওয়া সম্পদের হিসেবে আমি ধনবান । পদপদবী ধারণ করে অর্থ কামানোর ইচ্ছা আমার নেই, শুধু মানুষের সেবা করতে চাই । আমার কর্মকান্ড বিচার বিশ্লেষন করে দল আমাকে মনোয়ন দিলে আমি অবশ্যই বিপুল ভোটে জয়ী হবো ইনশাল্লাহ্। আমি নির্বাচিত হলে ইয়ারপুর ইউনিয়নবাসী একটি পূর্ণ আধুনিক ইউনিয়ন হিসেবে গড়ে তুলবো। সকল জনগণের মাঝে সরকারের ডিজিটাল সেবা নিশ্চিত করবো। সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হল মাদক, সন্ত্রাস নির্মূল করা, সেটাও আমি জনগণকে সাথে নিয়ে করবো। ইউনিয়নে দলীয় কোন্দল ও গ্রুপিং মুক্ত আওয়ামী লীগের রাজনীতি প্রতিষ্ঠা করব এবং অর্থনৈতিক ও সামাজিক উন্নয়ন সাধন করাই আমার প্রধান উদ্দেশ্যে হিসেবে কাজ করবে। অত্র এলাকায় বসবাসকারী লাখ লাখ শ্রমিকের চলাচলের স্বার্থে নতুন নতুন রাস্তাঘাট তেরি তার পথচলা কে আরো সুগম করবো । তিনি আরো বলেন, দল যাকে যোগ্য মনে করবে তাকেই মনোনীত করবেন। তবে ইতোমধ্যে আমি দলীয় প্রার্থী হিসেবে মানুষের কাছে পরিচিত হয়েছি। আমি আশা করি আমার কর্মকান্ড ও সমাজসেবা মুলক কাজের উপর ভিত্তি করে দল আমাকে মনোনয়ন দিবেন। আর আমি মনোনিত হলে বিপুল ভোটে নির্বাচিত হবো ইনশাল্লাহ্।

    বাংলাদেশ সময়: ৮:১০ অপরাহ্ণ | সোমবার, ০৮ নভেম্বর ২০২১

    dainikbanglarnabokantha.com |

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ